রাতে ইন্টারনেট বন্ধ রোহিঙ্গা শিবিরে, দুটো বিদেশি এনজিওর কার্যক্রম বন্ধ

রাতে ইন্টারনেট বন্ধ রোহিঙ্গা শিবিরে, দুটো বিদেশি এনজিওর কার্যক্রম বন্ধ

ফাইল ছবি

বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের প্রত্যাবাসন-বিরোধী তৎপরতায় আর্থিক সহায়তা এবং উস্কানি দেয়ার অভিযোগে এবার দু'টি বিদেশী এনজিও আদ্রা এবং আল মারকাজুল ইসলামীর কক্সবাজারের কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

কর্মকর্তারা বলেছেন, এই সংস্থা দু'টির ব্যাংক হিসাব বা আর্থিক লেনদেন স্থগিত করারও নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কক্সবাজারের টেকনাফ এবং উখিয়ায় রোহিঙ্গা শিবিরগুলোকে কেন্দ্র করে ঐ এলাকায় থ্রি জি, ফোর জি ইন্টারনেট সেবাও রাতের বেলা বন্ধ রাখা হচ্ছে।

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, শিবিরগুলোতে গত ২৪ ঘণ্টায় আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীগুলোর যৌথ টহল জোরদার করা হয়েছে।

রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর দ্বিতীয় দফার চেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার প্রেক্ষাপটে বাংলাদেশ সরকার এমন সব পদক্ষেপ নিচ্ছে।

প্রত্যাবাসনের বিরুদ্ধে তৎপরতায় উস্কানি দেয়া এবং শিবিরের ভিতরে রোহিঙ্গাদের সমাবেশে আর্থিক সহায়তা করা - এই দু'টি অভিযোগ তদন্তে প্রমাণ হওয়ার কথা উল্লেখ করে স্থানীয় প্রশাসন আদ্রা এবং আল-মারকাজুল ইসলামীর কার্যক্রম বন্ধের সুপারিশ করেছিল।

সরকারের এনজিও বিষয়ক ব্যুরোর মহাপরিচালক কে এম আব্দুস সালাম জানিয়েছেন, এ দুটো সংস্থার কার্যক্রম দেশের বিভিন্ন জায়গায় আছে। শুধু কক্সবাজারে তাদের কার্যক্রম এবং আর্থিক লেনদেন বন্ধ করা হয়েছে।

কয়েকদিন আগে কক্সবাজারে একটি দেশী এনজিওর কার্যক্রম বন্ধ করা হয়েছিল। এর আগে আরও ৬টি এনজিওর কর্মকাণ্ড সরকার বন্ধ করে দেয়।

 

ad